বীরগঞ্জে আবারো ১৪৪ ধারা ভঙ্গ করে সামীনা প্রাচীর নির্মাণ।

বীরগঞ্জ (দিনাজপুর) প্রতিনিধিঃ দিনাজপুরের বীরগঞ্জ উপজেলার শতগ্রাম ইউনিয়নে আদালতের ১৪৪ ধারা ভঙ্গ করে আবারো জমি দখলের পায়তারা করছেন মৃত. ডাঃ রহিম উদ্দীনের ছেলে ভূমিদুস্য শিহাবুর রহিদ সহ তার বাহিনী। রবিবার দুপুরে আদালতের আদেশ অমান্য করে নিয়মনীতি তোয়াক্কা না করে ইট দিয়ে সামীনা প্রাচীর নির্মাণের ঘটনা ঘটেছে। প্রাণের ভয়ে পরিবার নিয়ে মানবেতর জীবন-যাপন সহ ন্যায় বিচারের আশায় দ্বারে দ্বারে ঘুরছেন অসহায় বৃদ্ধ বুজুর আলী।

এলাকাবাসী ও অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, দেবারুপাড়া গ্রামের মৃত আবেদ আলীর ছেলে বুজুর আলীর ক্রয়কৃত দেবারুপাড়া মৌজার ৩০৯১ দাগের ৩৭ শতক জমি খারিস ও বাংলাদেশ জরিপে ১০৮নং ভি,পি খতিয়ান প্রকাশিত ও প্রচারিত হয়। বুজুর আলী ২০ই ডিসেম্বর ২০২১ই তারিখে সকাল ১০ টায় বাড়ী নির্মাণ করার জন্য বালু ভরাট করার সময় একই এলাকার মৃত. ডাঃ রহিম উদ্দীনের ছেলে ভূমিদুস্য শিহাবুর রহিদ বালু ভরাট নিষেধ করে উল্টো সন্ত্রাসীবাহিনী নিয়ে জোরপূর্বক জমি জবরদখল করার চেষ্টা করেন।

পূর্ববর্তীতে বুজুর আলী নিজের জমি রক্ষার্থে দিনাজপুর অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্টেট আদালত (বীরগঞ্জ) বরাবর ফৌজদারি মামলা দায়ের করেন। যাহার নম্বর ১০০ পি/২০২১। মামলার প্রেক্ষিতে বীরগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জকে ২ই নভেম্বর ২০২১ইং তারিখে স্মারক নং ৫০৫ অনুয়ায়ী বিজ্ঞ আদালত আদেশ প্রদান করেন। আদেশের প্রেক্ষিতে বীরগঞ্জ থানার এএসআই শরিফুল ইসলাম সরজমিনে প্রকাশ্যে ও গোপন তদন্তে বুজুর আলীর জমি পুনরায় শিহাবুর রহিদ জবরদখলের পায়তারা করছে ও উক্ত সম্পত্তিকে কেন্দ্র করে শান্তি-শৃংখলা ভঙ্গের গুরুতর আশঙ্কার সম্ভববনা রয়েছে বলে তিনি বিজ্ঞ আদালত বরাবর তদন্তের প্রতিবেদন প্রেরণ ও মামলা নিস্পত্তি না হওয়ার পর্যন্ত উভয় পক্ষে নিজ নিজ অবস্থানে থাকার জন্য ১৪৪ ধারার নোটিশ জারি করা হয়।

এলাকার সচেতনমহল জানান, ভূমিদুস্য শিহাবুর রহিদ সহ তার বাহিনী নিয়মনীতি তোয়াক্কা না করে বৃদ্ধ বুজুর আলীর দীর্ঘদিনের ভোগদখলীয় ও ক্রয়কৃত জমিতে অবৈধভাবে ইট দিয়ে সামীনা প্রাচীর নির্মাণ করছেন। এর আগেও রাতের আঁধারে ইট দিয়ে ঘর ও ২৫ মার্চ ২০২২ইং সালে ঘরের টিনের চালা দেন। পরপর দুইবার তারা আদালতের আদেশ অমান্য করল, তাদের খুটির জোর কোথায়। এমতাবস্থায় অসহায় বৃদ্ধ বুজুর আলী ন্যায় বিচারের দাবি সহ জমি রক্ষার জন্য সংশ্লিষ্ট কতৃপক্ষের আকুল আবেদন জানান।