প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে ধর্মান্ধদের প্রতিহত করতে হবে মনোরঞ্জন শীল গোপাল।

এনামুল মবিন(সবুজ), স্টাফ রিপোর্টারঃ ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের হিন্দু ধর্মীয় কল্যাণ ট্রাস্টের ধর্মীয় ও আর্থ-সামাজিক প্রেক্ষাপটে পুরোহিত ও সেবাইতদের দক্ষতা বৃদ্ধিকরণ (২য় পর্যায়) শীর্ষক প্রকল্প দিনাজপুর আঞ্চলিক কার্যালয়ের আওতায় অবহিতকরণ সভা অনুষ্ঠিত।

রোববার (৫ জুন) দুপুরে দিনাজপুর প্রেসক্লাবের সম্মেলন কক্ষে দিনাজপুর জেলায় ‘প্রশিক্ষণ কর্মকর্তাদের জন্য পরিচিত কোর্স’ শীর্ষক অবহিতকরণ সভায় জেলা প্রশাসক খালেদ মোহাম্মদ জাকীর সভাপতিত্বে প্রধান অতিথির হিসেবে উপস্থিত দিনাজপুুর-১ আসনের সংসদ সদস্য ও হিন্দু ধর্মীয় কল্যাণ ট্রাস্টের সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান মনোরঞ্জন শীল গোপাল।

মনোরঞ্জন শীল গোপাল(এমপি) বলেন, প্রত্যেক ধর্মে শান্তি ও মানবতার কথা বলা হয়েছে। ধার্মিক হওয়া ও ধর্মান্ধ হওয়া এক নয়। ধর্মকে মানুষের কল্যানে ব্যবহার করতে হবে। ধার্মিক ব্যাক্তিরা সমাজে ক্ষতি করে না। কিন্তু যারা ধর্মান্ধ তারা ধর্মের কথা বলে উগ্র সম্প্রদাকিতা সৃষ্টি করে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে এই ধর্মান্ধদের প্রতিহত করতে হবে। শেখ হাসিনার অসাম্প্রদায়িক দৃষ্টির কারণেই দেশে সকল ধর্ধের মানুষ তাদের নিজ নিজ ধর্ম শান্তিপূর্ণ ভাবে পালন করে যাচ্ছেন। মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ধারণ করতে হবে। বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে ধারণ ও লালন করতে হবে।

সম্মেলনে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদ জেলা শাখার সভাপতি সুনীল চক্রবর্তী ও সাধারণ সম্পাদক রতন সিং, জেলা পুজা উদযাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক উত্তম কুমার রায়, সাংগঠনিক সম্পাদক সঞ্জিত কুমার রায়, রাজ দেবোত্তর এস্টেট এর এজেন্ট রনজিৎ সিংহ, হিন্দু ধর্মীয় কল্যাণ ট্রাস্টের সহকারী প্রকল্প পরিচালক শাহ মোঃ মশিউর রহমান। অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন হিন্দু ধর্মীয় কল্যাণ ট্রাস্টের কনসালটেন্ট সিধেন চন্দ্র সিংহ।

এসময় সিভিল সার্জন, কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ পরিচালক, সমাজসেবা অধিদপ্তরের উপ পরিচালক, প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা, পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরের উপ পরিচালকসহ বিভিন্ন দপ্তরের প্রধানগনসহ মন্দিরের পুরোহিত ও সেবাইতসহ অন্যান্য অতিথিবৃন্দ উপস্থিতি ছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *