আটোয়ারীতে আইনগত সহায়তা বিস্তারে উদ্বুদ্ধকরণ বিষয়ক সভা।

মোঃ ইউসুফ আলী, আটোয়ারী(পঞ্চগড়) প্রতিনিধিঃ পঞ্চগড়ের আটোয়ারীতে জেলা ও মাঠ পর্যায়ে আইনগত সহায়তা প্রদান কর্মসুচির অগ্রগতি বিষয়ক ষান্মাসিক সমন্বয় ও উদ্বুদ্ধকরণ সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। জেলা আইনগত সহায়তা প্রদান কমিটি পঞ্চগড় ও আরডিআরএস বাংলাদেশ,পঞ্চগড় এর যৌথ আয়োজনে ডেমোক্রেসি ইন্টারন্যাশনাল এর বাস্তবায়নে এবং ইউএসএআইডি’র প্রমোটিং পিস এন্ড জাস্টিস (পিপিজে) এ্যাকটিভিটির অর্থায়নে মঙ্গলবার (০৭ জুন) বিকেলে উপজেলা পরিষদ কনফারেন্স রুমে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে সভাপতিত্ব করেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মোঃ তৌহিদুল ইসলাম।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ মুসফিকুল আলম হালিম এর সঞ্চালনায় প্রধান অতিথি হিসেবে জেলা আইনগত সহায়তা প্রদান কামিটির চেয়ারম্যান ও জেলা ও দায়রা জজ মোঃ শরীফ হোসেন হায়দার উপস্থিত থেকে লিগ্যাল এইড এর উদ্দেশ্য এবং কমিটির সদস্যদের করনীয় সম্পর্কে বক্তব্য রাখেন। বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন পঞ্চগড়ের সিনিয়র সহকারী জজ ও লিগ্যাল এইড অফিসার মোঃ ইসমাইল হোসেন। এ সময় পিপিজে’র প্রজেক্ট ম্যানেজার মোঃ আতিকুর রহমান ও রিজিওনাল কো-অর্ডিনেটর মোঃ হারুন অর রশিদ আইনগত সহায়তা প্রদান ( লিগ্যাল এইড) এর কার্যক্রম প্রজেক্টরের মাধ্যমে প্রামান্য চিত্র উপস্থাপন করেন প্রধান অতিথি বলেন, জাতীয় আইনগত সহায়তা প্রদান সংস্থা একটি সংবিধিবদ্ধ সরকারি প্রতিষ্ঠান।

আর্থিকভাবে অস্বচ্ছল , সহায় সম্বলহীন এবং নানাবিধ আর্থ-সামাজিক কারণে বিচার প্রাপ্তিতে অসমর্থ জনগোষ্ঠীকে আইনগত সহায়তা প্রদান কল্পে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার ২০০০ সালে “ আইনগত সহায়তা প্রদান আইন প্রণয়ন করে। এ আইনের আওতায় সরকার “ জাতীয় আইনগত সহায়তা প্রদান সংস্থা” প্রতিষ্ঠা করে। এবং দরিদ্র, অসহায় মানুষের আইনের আশ্রয় ও বিচার প্রবেশাধিকার নিশ্চিত করার উদ্দেশ্যে এ সংস্থার অধিনে প্রত্যেক জেলার জজ কোর্ট প্রাঙ্গণে জেলা লিগ্যাল এইড অফিস স্থাপন করেছে। জেলা লিগ্যাল এইড অফিসে সরকার সহকারী জজ/ সিনিয়র সহকারী জজ পদমর্যাদার একজন বিচারককে “লিগ্যাল এইড অফিসার” হিসেবে পদায়ন করেছে। দেশের সর্বোচ্চ আদালতে সরকারি আইনী সেবা নিশ্চিত করার উদ্দেশ্যে স্থাপন করা হয়েছে সুপ্রীম কোর্ট লিগ্যাল এইড অফিস। এছাড়া উপজেলা পর্যায়ে উপজেলা লিগ্যাল এইড কমিটি এবং ইউনিয়ন পর্যায়ে ইউনিয়ন লিগ্যাল এইড কমিটি গঠন করা হয়েছে। চৌকি আদালতে ও শ্রম আদালতে গঠিত হয়েছে বিশেষ কমিটি। সরকার আইনগত সহায়তা প্রদান সংস্থার তত্বাবধানে এসব কমিটি ও লিগ্যাল এইড কমিটির মাধ্যমে আর্থিকভাবে অসচ্ছল, সহায়-সম্বলহীন এবং নানাবিধ আর্থ-সামাজিক কারণে বিচার পেতে অসমর্থ বিচারপ্রার্থী ও শ্রমজীবি জনগনকে সরকারি খরচে আইনগত সহায়তা প্রদান করছে। সভায় উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান রেনু একরাম, আটোয়ারী থানার ওসি(তদন্ত) দুলাল উদ্দিন, ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানবৃন্দ, ইউপি সচিববৃন্দ, ইউপি’র সংরক্ষিত আসনের মহিলা সদস্যবৃন্দ, উপজেলার বিভিন্ন সরকারি দপ্তরের কর্মকর্তাবৃন্দ, উপজেলা আইনগত সহাযতা কমিটির সদস্যবৃন্দ সহ গণমাধ্যমকর্মীগণ উপস্থিত ছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *